আমদানির আড়ালে ২১৬ কোটি টাকা দুবাই পাচার

Dudok

ঢাকা : পণ্য ও খাদ্য আমদানির নামে দুবাইয়ে প্রায় ২১৬ কোটি টাকা পাচারের অভিযোগ সংক্রান্ত তথ্য জানতে বাংলাদেশ ব্যাংকসহ ৫ জায়গায় চিঠি দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। বুধবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদক প্রধান কার্যালয়ে কমিশন পৃথক ৫টি চিঠি দেয়া হয়।

চিঠিতে এই বিপুল অংকের টাকা পাচার সংক্রান্ত তথ্য ও রেকর্ডপত্র আগামী ২৩ আগস্টের মধ্যে সরবরাহ করতে বলা হয়েছে।

এ চিঠি বাংলাদেশ ব্যাংক ফাইন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের মহাব্যবস্থাবপক বরাবার বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়; আগারগাঁওয়ে অবস্থিত পাসপোর্ট ভবনের ইমিগ্রেশন ও পাসপোর্ট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক; মতিঝিলের সিটি সেন্টারে অবস্থিত সোস্যাল ইসলামী ব্যাংক ব্যবস্থাপনা পরিচালক; আল আরাফা ইসলামী ব্যাংক এবং ঢাকা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক বরাবর পাঠানো হয়েছে।

দুদক সূত্র জানায়, দুবাইভিত্তিক কোম্পানি মোহসেন আল ব্রাইকি জেনারেল ট্রেডিং থেকে পণ্য আমদানির নামে তিন ব্যাংকের মাধ্যমে ঋণপত্র খোলে পুরান ঢাকার মিটফোর্ড এলাকার রাসায়নিক পণ্য ও খাদ্য আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান মেসার্স ফয়েজ উদ্দিন অ্যান্ড কোম্পানি। কিন্তু পণ্য না নিয়ে পাচার করেছে প্রায় ২১৬ কোটি টাকা। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের বিশেষ পরিদর্শনে পণ্য আমদানির নামে দুবাইয়ে অর্থ পাচারের এ প্রমাণ মিলেছে। এরপর তা দুদকে আসে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *